Monday , May 20 2019
Breaking News
Home / সারাদেশ / মসলিন কাপড়ের জন্য বিখ্যাত কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর উপজেলা।

মসলিন কাপড়ের জন্য বিখ্যাত কিশোরগঞ্জের বাজিতপুর উপজেলা।

এক সময়কার মসলিন কাপড়ের জন্য বিখ্যাত #বাজিতপুর উপজেলা।

বৃটিশ আমলে ময়মনসিংহ অঞ্চলে মসলিন কাপড়ের জন্য বিখ্যাত বাজিতপুর বর্তমানে কিশোরগঞ্জ জেলার মধ্যঞ্চলে অবস্থিত একটি গুরুত্বপুর্ণ উপজেলা। শিল্পপতি মরহুম জহুরুল ইসলাম বাজিতপুরে বিভিন্ন উন্নায়ন মুলক কর্মকান্ডের দ্বারা বাজিতপুর আজ বাংলাদেশে একটি পরিচিত নাম। দেশের সর্ব বৃহৎ বেসরকারী জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ দেশ বিদেশে পরিচিত। বাজিতপুরের নামের সাথে জরিয়ে আছে তৎকালীন পুর্ব পাকিস্হানের গর্ভণর আব্দুল মোনায়েম খানের নাম, তিনি ছিলেন ময়মনসিংহ অঞ্চলের উন্নায়নের দাবীদার, মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে আব্দুল মোনায়েম খান পশ্চিম পাকিস্থানের পক্ষ নেয়ায় বর্তমানে তিনি সমালোচিত ব্যাক্তি। বৃটিশ আমলে বাজিতপুর একটি গুরুত্বপুর্ণ জনপদ হওয়ায় এখানে গড়ে উঠেছিল বিমান বন্দর, দেওয়ানী আদালত ও উপ কারাগার। শুধু তাই নয়, মহকুমা গঠনের লক্ষ্যে ১০০ একর ভুমি অধিগ্রহনও করা হয়েছিল, যা এখনোও বিদ্যমান।

বাজিতপুর নামের উৎপত্তি সম্বন্ধে জনশ্রুতি হলো মুঘল আমলে বায়েজিদ খাঁ নামক জনৈক রাজ কর্মচারী তার অপর তিন ভ্রাতা ভাগল খাঁ, পৈলন খাঁ ও দেলোয়ার খাঁ সহ দিল্লী থেকে এসে এখানে অবস্থান করেন । কিছুদিন পর তারা বাজিতপুর এর আশে পাশে ৪টি স্থানে তাদের স্ব- স্ব বাসস্থান ঠিক করে নেওয়ার পর বায়েজিদ খাঁর বাসস্থানের নামে বায়েজিদপুর, পরে উচ্চারণ বিবর্তনে তা হয় বাজিতপুর । এইরূপে পৈলান খাঁর নামে পৈলানপুর এবং ভাগল খাঁর নামে ভাগলপুর ও দেলোয়ার খাঁর নামে দিলালপুর বলে পরিচিতি লাভ করে ।

ঐতিহাসিক ও প্রসিদ্ধ স্হান সমূহ :-

১/ দেওয়ানবাড়ী মসজিদ,
২/পাগলা শংকরের আখড়া
৩/ জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল
৪/ ডাক বাংলার মাঠ এবং দীঘি
৫/ কৈলাগ ব্রিজ
৬/ গোলক চন্দ্র সাহার বাসস্থান
৭/ মাইজচর জামে মসজিদ
৮/ দিলালপুর ঘাট
৯/ সরারচর বিমান বন্দর
১০/ ঘোড়াওত্রা নদী
১১/ নাজিম ভূইঁয়া ঈদগাহ মাঠ

কিশোরগঞ্জ জেলা শহর থেকে প্রায় ৪৫ কিঃ মিঃ দুরে বাজিতপুর উপজেলার উত্তরে কটিয়াদি উপজেলা, নিকলী উপজেলা এবং অষ্টগ্রাম উপজেলা, দক্ষিণে কুলিয়ারচর উপজেলা এবং সরাইল উপজেলা, পূর্বে অষ্টগ্রাম উপজেলা এবং নাসিরনগর উপজেলা আর পশ্চিমে কটিয়াদি উপজেলা দ্বারা বেষ্টিত।

বাজিতপুর থানা প্রতিষ্ঠিত হয় ১৮৩৫সালে এবং উপজেলায় পরিনত হয় ১৯৮৩ সালে। উপজেলার আয়তন ১৯৩.৭৬ বর্গ কি.মি.। এতে ১টি পৌরসভা, ১১টি ইউনিয়ন পরিষদ, ৯২টি মৌজা, ১৭৮টি গ্রাম আছে।

ইউনিয়ন সমূহ :-

১/ মাইজচর ইউনিয়ন, ২/ দিলালপুর ইউনিয়ন
৩/ গাজীরচর ইউনিয়ন, ৪/ হুমায়ুনপুর ইউনিয়ন
৫/ দিঘীরপাড় ইউনিয়ন, ৬/ হালিমপুর ইউনিয়ন
৭/ সরারচর ইউনিয়ন, ৮/ বলিয়ার্দী ইউনিয়ন
৯/ হিলচিয়া ইউনিয়ন, ১০/ কৈলাগ ইউনিয়ন
১১/ পিরিজপুর ইউনিয়ন।

সুত্রঃফেইসবুক

◊ নতুনদের পাসপোর্ট করতে যা করণীয় জানতে কিক্ল করুন https://bit.ly/2QU74NW

Please follow and like us:
error0

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *